Select Page

ওমর সানীর ভোট বেড়েছে ৯টি

ওমর সানীর ভোট বেড়েছে ৯টি

৫ মে অনুষ্ঠিত বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির নির্বাচনের ফলাফল বাতিল চেয়ে রোববার নির্বাচন আপিল বোর্ডের চেয়ারম্যান বরাবর আবেদন করেন সভাপতি পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করা পরাজিত প্রার্থী ওমর সানী। তার করা এই আবেদন আমলে নিয়ে সোমবার দুপুরে নির্বাচন কমিশন ও আপিল বোর্ড পুনরায় ভোট গণনার সিদ্ধান্ত নেয়। নতুন করে ভোট গণনায় পরাজিত সভাপতি প্রার্থী ওমর সানীর পক্ষে ৯টি ভোট বাড়ে। তার ঘোষিত ভোটসংখ্যা ১৫৩ থেকে বেড়ে দাঁড়ায় ১৬২-তে। খবর প্রথম আলো।

এদিকে জয়ী সভাপতি প্রার্থী মিশা সওদাগর ২৫৯ ভোট পেয়েছেন। তাই নির্বাচনের ফলাফল অপরিবর্তিতই থাকছে বলে নির্বাচন কমিশন জানিয়েছে।

নির্বাচন বাতিলের আবেদনপত্রে ওমর সানীর করা অভিযোগগুলো ছিল ঘোষিত ফলাফলে প্রাপ্ত ভোটের সংখ্যা অসংগতিপূর্ণ, ভোট গণনাকেন্দ্র থেকে শিল্পী সমিতির বিদায়ী কমিটির সভাপতি শাকিব খানকে বের করে দেওয়া এবং ভোট কারচুপির।

পুনরায় ভোট গণনার পর নির্বাচন কমিশনের চেয়ারম্যান মনতাজুর রহমান আকবর বলেন, ‘ক্যালকুলেটরে হিসাব করায় ভুল হয়েছিল। ওই দিন ভোট গণনার সময় যেসব কাগজে ওমর সানীর পাওয়া ভোটসংখ্যা লেখা হয়েছে, সংখ্যা ঠিকই আছে। কিন্তু সব পাতা থেকে মোট ভোটসংখ্যা ক্যালকুলেটরে যোগ করতে গিয়েই ভুল হয়েছিল। নতুন করে গণনা করতে গিয়ে ভুল ধরা পড়েছে। প্রাথমিক গণনায় এ ধরনের ভুল কখনো কখনো হতেই পারে। তাই বলে যে ভোট গণনায় কারচুপি হয়েছে, এটি অবাস্তব দাবি। চূড়ান্ত ফলাফলের সব পাতায় ওমর সানীর দুজন প্রতিনিধি মৌসুমী ও অমিত হাসানের স্বাক্ষরও আছে। আমাদের ওপর যে দায়িত্ব ছিল, তা সঠিকভাবে পালন করেছি।’

আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ফলাফল বাতিল করা হবে কি না, এ প্রসঙ্গে আকবর বলেন, ‘ফলাফল বাতিলের কোনো প্রশ্নই আসে না। কোনো সুযোগও নেই।’

এদিকে সংশোধিত ভোটের ফলাফল মঙ্গলবার সন্ধ্যা সাড়ে ছয়টায় আবেদনকারী ওমর সানীর হাতে তুলে দেওয়ার কথা।


অামাদের সুপারিশ

মন্তব্য করুন

ই-বুক ডাউনলোড করুন

Shares