Select Page

কেন দেখবেন ‘রান আউট’ ও ‘আজব প্রেম’

কেন দেখবেন ‘রান আউট’ ও ‘আজব প্রেম’

MOVIE-HOME

সারাদেশে শুক্রবার (১৬ অক্টোবর) মুক্তি পাচ্ছে দুই ছবি— তন্ময় তানসেন পরিচালিত ‘রান আউট’ ও ওয়াজেদ আলী সুমনেরআজব প্রেম’। এ প্রতিবেদনে আমরা জানাবো সিনেমা দুটি আপনি কোন কোন বিশেষ কারণে দেখবেন—

রান আউট

ভাইকিংস ব্যান্ডের ভোকাল তন্ময় তানসেন হঠাৎ করেই নাটক নির্মাতা থেকে চলচ্চিত্র নির্মাতায় বনে গেছেন। ভালো ভালো ছবি বানাচ্ছেন। তার নাম এখন ফেসবুকে অধিক শোনা যায়। তন্ময় তানসেনকে ইদানিং টিভিতেও বেশী দেখা যায়। শুধুমাত্র যে অনলাইনে তা নয়, অফলাইনে অর্থাৎ মিডিয়াপাড়ায় তন্ময় তানসেনের নাম শোনা যাচ্ছে খুব। আরও শোনা যাচ্ছে- তার নতুন ছবি রান আউটের কথা। এ সিনেমায় অভিনয় করেছেন সজলমৌসুমী নাগ এবং একটি বিশেষ চরিত্রে নায়লা নাঈম।

ট্রেন্ডিং : বর্তমান ছবির মার্কেটে ‘রান আউট’ই ট্রেন্ড। ছবির কিছু বিষয় নিয়ে একদিকে ক্ষোভ, আবার অন্যদিকে ট্রেলার নিয়ে ভালোলাগার সৃষ্টি হয়েছে। প্রচারনা ও ছবির কিছু কন্টেন্ট আলোচনার সৃষ্টি করেছে। ফলে এই ছবি নিয়ে ভাই-বন্ধু, অনলাইন ও কর্মস্থলেও কথা হচ্ছে।

ছবির ধরন : ‘রান আউট’ এ্যাকশনধর্মী ছবি। চারপাশের অনিয়ম আমাদের ভায়োলেটেড হতে বাধ্য করেছে। সেই সেন্স থেকে এবং একটা পলিটিক্যাল থ্রিলার হিসেবে ‘রান আউট’ আকর্ষণীয়। পলিটিক্যাল থ্রিলার বাংলাদেশে হয় না বললেই চলে, এর আগে সৈকত নাসির পরিচালিত ‘দেশা দ্য লিডার’ হয়েছিল। সিনেমাটি তরুণ প্রজন্ম পছন্দ করেছিল।

পুর্ব অভিজ্ঞতা : তন্ময় তানসেনের একটি মাত্র সিনেমা মুক্তি পেয়েছে—‌ ‘পদ্ম পাতার জল’। সিনেমাটির ইতিবাচক রিভিউ পেয়েছে। তন্ময়ের কাজও যথেষ্ট গোছানো। সে অভিজ্ঞতা দর্শকদের মনে রাখাই কথা। বিশেষ করে মধ্যবিত্ত বা এ মানসিকতার তরুণরা সিনেমাটি পছন্দ করবেন!

11222290_907738789316328_1210568678462647348_n

কাস্টিং : রোমান্টিক টিভি নায়ক হিসেবে সজলের সিনেমা অভিনেতা হওয়া অনেকটাই টাফ। কিন্তু এই সিনেমার ট্রেলার দেখে সজলকে নায়ক হিসেবে কারো খারাপ লাগেনি। তাছাড়া তারিক আনাম খান, ওমর সানির মতন মেধাবী রয়েছে এই ছবিতে। মৌসুমী নাগের মধ্যে একটা ‘পাশের বাড়ির মেয়ে’ ভাব আছে, যা নায়িকা চরিত্রে আরও সুন্দর মানিয়েছে।

কন্টেন্ট : এ ছবির গল্প বেশ ভালো। সাউন্ড ও এডিটিং তুলনামুলকভাবে স্মার্ট। রক্তপাতের ব্যবহার ও ডার্ক কন্টেন্টের জন্য ‘১৮+’ সতর্কতা দেয়া হয়েছে। তাছাড়া বড় কথা হলো এ ছবি নিয়ে এখনো নকলের অভিযোগ উঠেনি। ট্রেলার দেখে মনে হয়েছে তেলেগু প্রভাব মুক্ত আধুনিক ভায়োলেন্স ফিল্ম। আর ‘কিছু বিশেষ দৃশ্য’ ও ‌‘একটি বিশেষ চরিত্রে’ নায়লা নাঈম তো রয়েছেনই।

আজব প্রেম

ঢাকাই চলচ্চিত্রে জনপ্রিয় পরিচালক জুটি শাহীন-সুমন। নানা কারণে তাদের রসায়ন নষ্ট হয়ে গেছে, উভয়ই আর একসাথে সিনেমা করবেন না বলে দাবিও করেন। ‘আজব প্রেম’ ওয়াজেদ আলী সুমন সাম্প্রতিক নির্মাণ।

সিনেমাটি এখন মুক্তি পাইনি কিন্তু অনেকে নাকি আগে আরও দুইবার দেখেছেন। এ কথার কারণ হলো ‘আজব প্রেম’ তেলেগু ছবি ‘আরিয়া ২’ এর নকল বলে অভিযোগ উঠেছে। এর আগে একই কাহিনীতে নির্মিত হয়েছে ‘আমি শুধু চেয়েছি তোমায়’। তবুও বলা যায় দর্শক নতুন সিনেমাটিও দেখবে। কেন?

Ajob Prem by wajed ali sumon with bappy achol joy chowdhury (11)

বাপ্পী-আঁচল : সম্প্রতি যে কয়েকটি জুটি জনপ্রিয় হয়েছে তার মধ্যে বাপ্পীআঁচল জুটি একটি। প্রেম প্রেম পাগলামি, কী প্রেম দেখাইলা, গুন্ডা দ্য টেরোরিস্ট, সুলতানা বিবিয়ানা, এপার ওপারসহ মোট ৭টি সিনেমায় তারা জুটি হয়েছেন। এর মধ্যে ‌‘আজব প্রেম’সহ চারটি মুক্তি পেল। বর্তমান নায়কদের মধ্যে বাপ্পীর অভিনয় সাধারণমানের, তবে প্রান্তবন্ত। তার জনপ্রিয়তাও বেশ। তার কারণে ঢাকার বাইরে সিনেমাটি টানতে পারে।

ছবির গল্প : হ্যা, চেনা গল্প, তবে অসাধারন। প্রেমে পড়ে প্রেমিক যে আজব কিছু করতে পারে এবং সেগুলো ভালোও লাগে তা এই ছবিটি দেখলেই বোঝা যাবে। এজন্যই বোধহয় ছবির নাম ‘আজব প্রেম’। বেশ শক্ত গাঁথুনি আছে গল্পে।

অবশেষে বলতে চাই, অসহ্য ট্রাফিক জ্যাম, অনুন্নত হল, বসার অযোগ্য সিটে বসে বাংলা সিনেমা দেখার জন্য আপনাকে অগ্রীম ধন্যবাদ।


অামাদের সুপারিশ

মন্তব্য করুন

ই-বুক ডাউনলোড করুন

BMDb ebook 2017

স্পটলাইট

Saltamami 2018 20 upcomming films of 2019
Coming Soon
ঈদুল আজহায় কোন সিনেমাটি দেখছেন?
ঈদুল আজহায় কোন সিনেমাটি দেখছেন?
ঈদুল আজহায় কোন সিনেমাটি দেখছেন?

[wordpress_social_login]

Shares