Select Page

ছাড়পত্র পেল গণঅর্থায়নের ‘সাঁতাও’

ছাড়পত্র পেল গণঅর্থায়নের ‘সাঁতাও’

বিনা কর্তনে আজ বৃহস্পতিবার সেন্সর ছাড়পত্র পেয়েছে গণঅর্থায়নে নির্মিত ‘সাঁতাও’। ছবিটি পরিচালনা করেছেন খন্দকার সুমন। নির্মাতা নিজেই খবরটি নিশ্চিত করেছেন।

প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর জীবন যাপনের চিত্রায়নের প্রয়াসে নির্মিত ছবিটির প্রধান চরিত্রে অভিনয় করেছেন আইনুন পুতুল ও ফজলুল হক।

নদীর অববাহিকায় সুজলা, সুফলা, শস্য, শ্যামলা গ্রাম। নানান প্রকল্পের নাম করে নদীর উপর একের পর এক বাঁধ নির্মিত হয়েছে। উজানে বাঁধের কারণে নদীর ভাটি অঞ্চল প্রায় মরু ভূমিতে পরিণত হচ্ছে। কৃত্রিম ভাবে সেচ প্রকল্পের মাধ্যমে এখনও কৃষি কাজ চললেও গ্রামের সাধারণ কৃষকের জন্য এই পদ্ধতিতে চাষ ব্যয়বহুল। সেচ প্রকল্পের নিয়ন্ত্রক গ্রামের প্রভাবশালী ব্যক্তিরা।

কৃষকের এই অসহায়ত্বের সুযোগ নিয়ে রমরমা ব্যবসা করছে দাদন ব্যবসায়ী এবং ক্ষুদ্র ঋণদাতা সংস্থাগুলো। গ্রামে এক দিকে ক্ষুদ্র ঋণের কিস্তির চাপ অন্য দিকে কৃষি কাজের বৈরি পরিবেশ, কৃষকেরা গ্রাম ছেড়ে শহরে যাচ্ছে, জীবনের মায়া না করে ঝুঁকিপূর্ণ কাজ করছে। নানান দুর্ঘটনায় লাশ হয়ে ফিরছে গ্রামে।

এমন সব চলমান ঘটনার বিপরীতে থাকা একজন সাধারণ কৃষক ফজলু। মাতা-পিতাহীন ফজলু বিয়ে করে উজানের গ্রামের মেয়ে পতুলকে। ফজলু এবং পুতুল দম্পতির পরিবারে একটি গরু নতুন সদস্য হয়ে আসে। ফজলু, পুতুল এবং গরু নিয়ে এগুতে থাকে সাঁতাও চলচ্চিত্রের গল্প।

পরিচালনা ছাড়াও ‘সাঁতাও’-এর কাহিনি, চিত্রনাট্য ও সংলাপ লিখেছেন খন্দকার সুমন।


মন্তব্য করুন

Shares