Select Page

এ কেমন ‘সুপার হিরো’? (টিজার)

এ কেমন ‘সুপার হিরো’? (টিজার)

শুরুতেই ধ্বংসের চিহ্ন। পড়ে আছে কিছু মৃতদেহ। বলা হচ্ছে, যখন যুদ্ধ কড়া নাড়ে হিরো যথেষ্ট নয়, তখন সুপারহিরোর আবির্ভাব ঘটে। ভালো কথা। তবে কোথায় সেই ‘সুপারহিরো’?

এরপর তাকে দেখা গেল। যুদ্ধক্ষেত্র নয়। একটা টালির ছাদে দাঁড়িয়ে যোদ্ধার ভাব করছেন। কিন্তু অভিব্যক্তিতে যুদ্ধ ও ধ্বংস পরবর্তী কোনো চিহ্নই ফুটে উঠল না। আর ব্যাকগ্রাউন্ডে বেজে উঠল গান, ‘সুপার হিরো’।

দর্শক মাত্রই জানেন, সিনেমাটির পরিচালক আশিকুর রহমান। তার সিনেমার একটা বিশেষ ধরন আছে। যতটা অভিনয়ের প্রাণবন্ততা বা কারিশমা, তারচেয়ে বেশি স্টাইলে গুরুত্ব দেন তিনি। এই কারণেই হয়তো সুপার হিরোকে যুদ্ধ ক্ষেত্র থেকে সরিয়ে আনলেন।

টাইটেল গানটি পৌনে দুই মিনিট দৈঘ্যের টিজার জুড়ে বেজে গেল। সেই গানেও নেই কোনো আবেদন। এরপর দৃশ্যের পর দৃশ্য আসতে থাকে। তেমন উত্তেজনাকর না হলেও ভিজ্যুয়ালি আরামদায়ক। এতে দিনদিন উন্নতি করছেন আশিকুর।

বোঝা গেল, বেশ বড় আয়োজনে, বৈচিত্র্যপূর্ণ লোকেশনে সিনেমাটি নির্মাণ করা হয়েছে।

এখানে বলা হচ্ছে ‘সুপার হিরো’ অস্ট্রেলিয়ায় নির্মিত বাংলাদেশের প্রথম সিনেমা। এ কথা যে ভুল সবাই জানেন। হয়তো মুক্তি পায়নি, তাই বলে প্রথম মুক্তি পাওয়া সিনেমাকে প্রথম নির্মাণ বলা কতটা অসাধুতা তা নিশ্চয় সবাই জানেন।

সেই যায় হোক, স্টাইলই যদি প্রাধান্য পায়- সেটাই হোক। বাকি দেখা যাবে পর্দায়।

টিজারের শুরুতেই জানা গেল, প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান হার্টবিট প্রডাকশন ত্রিশ বছর পার করছে। তাদের সাধুবাদ।

সিনেমাটিতে শাকিবের বিপরীতে আছেন শবনম বুবলি। তাকেও প্রথমবারের মতো অ্যাকশন অবতারে দেখা যায়।


মন্তব্য করুন

Shares