Select Page

কেমন হতো রঙিন ‘জীবন থেকে নেয়া’ (ভিডিও)

কেমন হতো রঙিন ‘জীবন থেকে নেয়া’ (ভিডিও)

জহির রায়হানের অবিস্মরণীয় চলচ্চিত্র ‘জীবন থেকে নেয়া’ মুক্তি পায় ১৯৭০ সালের ১০ এপ্রিল। এর ৬ বছর আগেই পাকিস্তানের প্রথম রঙিন ছবি (সঙ্গম) নির্মাণ করেছিলেন জহির, কিন্তু আলোচ্য সিনেমাটি ছিল সাদাকালো।

বিশ্বের অনেক সাদাকালো ছবিই পরবর্তী কারিগরিতে রঙিন হয়েছে, সে ক্ষেত্রে প্রশ্ন উঠতেই পারে কেমন হবে রঙিন ‘জীবন থেকে নেয়া’? হ্যাঁ, সাদাকালো থেকে রঙিনে রূপান্তর ততটা আকর্ষণীয় নাও লাগতে পারে।

সম্প্রতি ‘জীবন থেনে নেয়া’র একটি বিখ্যাত দৃশ্য রঙিন করে অনলাইনে ছাড়া হয়েছে। এটা যে পেশাদার কাজ তা নয়, বরং স্বয়ংস্ক্রিয় ডিজিটাল কালারাইজ সফটওয়ার ব্যবহার করে (ডিপ নিউরাল নেটওয়ার্কস বা ডিওল্ডিফাই) মজা হিসেবে কাজ করা হয়েছে।

ফুটেজটুকু সম্পাদনা করেছেন দেবব্রত চক্রবর্তী কাকন নামের এক প্রকৌশলী। শেয়ার করেছেন নিজের ফেসবুক ও ইউটিউব অ্যাকাউন্টে।

ওই দৃশ্যে ছবির অন্যতম অভিনয়শিল্পী আনোয়ার হোসেন, রোজী সামাদ ও সুচন্দাকে ‘আমার সোনার বাংলা’ বা পরবর্তীতে স্বাধীন বাংলাদেশের জাতীয় সংগীত গাইতে দেখা যায়। দৃশ্যটি ততটা দৃষ্টিনন্দন না হলেও আনন্দদায়ক

‘আমার সোনার বাংলা’ প্রসঙ্গে উল্লেখ করা যায় যে, এই চলচ্চিত্রের সংগীত পরিচালক ছিলেন খান আতাউর রহমান। তিনি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ‘আমার সোনার বাংলা’ গানটিকে আধুনিক যন্ত্রপাতির মাধ্যমে কম্পোজিশন করলেন। এর মাধ্যমে উপমহাদেশে প্রথমবারের মতো রবীন্দ্র সংগীতে আধুনিক যন্ত্রপাতি ব্যবহৃত হয় এই গানটির মাধ্যমে। স্বাধীনতার আগে এটিই ছিল এই গানের প্রথম আনুষ্ঠানিক ব্যবহার।

সামাজিক এই চলচ্চিত্রে তৎকালীন বাঙালি স্বাধীনতা আন্দোলনকে রূপকের মাধ্যমে তুলে ধরা হয়েছে। ছবিটিতে আরও করেছিলেন রাজ্জাক, খান আতাউর রহমান, রওশন জামিল প্রমুখ।


মন্তব্য করুন

Shares