Select Page

টেলি সামাদকে বিদায় জানানোর সময় হয়নি তাদের

টেলি সামাদকে বিদায় জানানোর সময় হয়নি তাদের

‘এফডিসি থেকে বিদায় নিলেন টেলি সামাদ। চলচ্চিত্রের এক খণ্ড ইতিহাস। শেষ বিদায়ে সিনিয়র শিল্পীরা অনেকেই উপস্থিত থাকলেও বর্তমান সুপার স্টারদের কেউই উপস্থিত ছিলেন না। যদি নাম ধরে বলি শাকিব, রিয়াজ, ফেরদৌস, সানী, শুভ, বাপ্পী, সাইমন, ইমন, মৌসুমী, শাবনুর, পপি ওদের কাউকেই দেখা যায়নি।’ ফেসবুক স্টাটাসে বললেন পরিচালক এম এন ইস্পাহানী।

ঢালিউডের জনপ্রিয় এ অভিনেতা টেলি সামাদ না ফেরার দেশে পাড়ি জমিয়েছেন ৬ এপ্রিল। রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালে শনিবার বেলা দেড়টার দিকে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। তার বয়স হয়েছিল ৭৪ বছর।

রোববার সকাল ১১টায় শেষবারের মতো এফডিসিতে আসেন টেলি সামাদ, তবে লাশ হয়ে লাশবাহী গাড়িতে চড়ে। নিজের প্রিয় কর্মস্থলে আজ সাজানো হলো তার শেষ বিদায়ের মঞ্চ।

দীর্ঘদিনের প্রিয় সহকর্মীদের অনেকে এলেন তাকে শেষ বিদায় জানাতে। এফডিসির জহির রায়হান কালার ল্যাব এর সামনে দুপুর সাড়ে ১২টায় তার চতুর্থ জানাজায় অংশ নেন তারা।

এ সময় জানাজায় উপস্থিত ছিলেন তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ, তথ্য সচিব আব্দুল মালেক, এমপি ও চিত্রনায়ক আকবর পাঠান ফারুক, আলমগীর, জায়েদ খান, মুশফিকুর রহমান গুলজার, অমিত হাসান, সম্রাট, আলীরাজ, ফকির আলমগীর প্রমুখ।

অনুভূতি জানাতে গিয়ে অশ্রু মুছলেন নায়ক ফারুক, আলমগীর, জায়েদ খান, অমিত হাসানেরা। নয়ন ভরা জলে টেলি সামাদকে শেষ দেখা দেখতে হাজির হয়েছিলেন চিত্রনায়িকা অঞ্জনা, নাসরিনসহ বেশ ক’জন নারী শিল্পী ও কলাকুশলী।

এ ছাড়া আর কাউকে দেখা যায়নি এফডিসিতে। বিশেষ করে নতুন প্রজন্মের চলচ্চিত্রকর্মীদের বলা চলে কাউকেই দেখা যায়নি গুণী এই শিল্পীর শেষ বিদায়ের আনুষ্ঠানিকতায়।

এদিকে জানাজা শেষে টেলি সামাদকে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে মুন্সিগঞ্জে। সেখানে নিজ গ্রাম নয়াগাঁওতে পারিবারিক গোরস্থানে চিরনিদ্রায় শায়িত হবেন তিনি।


অামাদের সুপারিশ

মন্তব্য করুন

ই-বুক ডাউনলোড করুন

BMDb ebook 2017

স্পটলাইট

Saltamami 2018 20 upcomming films of 2019
Coming Soon

[wordpress_social_login]

Shares