Select Page

নানা-নাতি ও একটি আফসোস

নানা-নাতি ও একটি আফসোস

১.
নানা – সকালবেলা ধপাস কইরা পইড়া গেলাম।
নাতি – একখান ভুল কথা কইলা। তুমি আগে পড়ছ তারপর না ধপাস শব্দ হইছে
২.
নাতি – ঢেঁড়শের ইংরেজি লেডিস ফিঙ্গার। ক্যান জেমস ফিঙ্গার হইলে কি অসুবিধা?
৩.
নানা – আমার পায়জামাটা নিয়ে আয়
নাতি – পায়ে পরে বলে পায়জামা বলে ক্যান গায়ে পরলে গায়জামা তো কয় না
৪.
নানা – তোর মুখটা এত খারাপ ক্যান রে?
নাতি – আবার ভুল কইলা। মুখ খারাপ না কও মুখের কথা খারাপ
৫.
নানা – তোর অত্যাচারে আমার দেয়ালে পিঠ ঠেকছে
নাতি – আবার ভুল কইলা। দেয়াল কই আর তোমার পিঠ কই!
৬.
নানা – আমার বন্ধুরে শুভ নববর্ষ জানায় আয় আমার শরীরটা খারাপ
নাতি – ভুল কথা কইতে পারুম না।
নানা – এইখানে ভুল কি পাইলি?
নাতি – তুমি ক্যামনে বুঝলা নতুন সালটা তোমার বন্ধুর জন্য শুভ না অশুভ?
৭.
নানা – মনে রাখিস ‘স্বাস্থ্যই সকল সুখের মূল’
নাতি – ভুল কথা।
নাতি – এর মধ্যে আবার ভুল কি পাইলি?
নাতি – পাশের বাসার আঙ্কেলের তো স্বাস্থ্য ভালো কিন্তু সুখ নাই ক্যান?

এভাবেই বিভিন্ন প্রসঙ্গে নানা-নাতির তর্ক লেগে থাকত, নানার কথার ভুল ধরত নাতি আর দর্শক পেত নির্মল বিনোদন। জনপ্রিয় ও আদর্শ উপস্থাপক হানিফ সংকেতের ম্যাগাজিন অনুষ্ঠান ‘ইত্যাদি’-তে ‘নানা-নাতি পর্ব’ হিট ছিল। নানা চরিত্রে অভিনয় করেছেন শক্তিমান অভিনেতা অমল বোস এবং নাতি চরিত্রে শওকত আলী তালুকদার নিপু। হানিফ সংকেত তাঁদেরকে ‘ইত্যাদি’-তে সুযোগ দেবার পর জনপ্রিয়তা ও দর্শক চাহিদা বাড়ে। প্রায় প্রতিটি পর্বেই একসময় তাঁদেরকে পারফর্ম করতে হয়েছে। তাঁদের রসায়ন ছিল জমজমাট। অমল বোস নিপুকে হাতে-কলমে অভিনয় শেখাতেন। কিভাবে দাঁড়াতে হবে, কিভাবে ডায়লগ ডেলিভারি দিতে হবে, কিভাবে এক্সপ্রেশন দিতে হবে শেখাতেন। দেশে-বিদেশে অনেক জায়গায় শো করেছেন তাঁরা। যে কোনো পরামর্শের জন্য নিপু অমল বোসের কাছে যেতেন। অমল বোসের মৃত্যুর পর নাতি একা হয়ে পড়েন। তারপর জনপ্রিয়তার কথা মাথায় রেখে নানী চরিত্রে শবনম পারভীনকে আনা হয়। নানী-নাতির পর্ব এখন চালু আছে ইত্যাদি-তে।

একটা আফসোস আছে নানা-নাতি নিয়ে। এত জনপ্রিয় একটা জুটি ছিল অথচ তাদেরকে চলচ্চিত্রে ব্যবহার করেনি কেউ। বিষয়টা আশ্চর্যজনক। চলচ্চিত্রে আনলে তাঁদের জনপ্রিয়তা আরো বেড়ে যেত এবং যুগ যুগ টিকে থাকত সেলুলয়েডের ফিতায়। তাঁদের উপযোগী চরিত্র দিয়েই কমেডিতে কাজে লাগানো যেত। দিলদার, আফজাল শরীফ-দের ফাঁকে নানা-নাতির আরেকটা কমেডি ফর্ম চালু করা যেত বাণিজ্যিক ছবিতে।

অভিনেতা অমল বোস আজ নেই। তাঁর আত্মার শান্তি কামনা করি। নিপু-র আগামী দিনের সাফল্য আসুক ‘ইত্যাদি’-র নানীর সাথে।


অামাদের সুপারিশ

মন্তব্য করুন

ই-বুক ডাউনলোড করুন

BMDb ebook 2017

স্পটলাইট

Saltamami 2018 20 upcomming films of 2019
Coming Soon
ঈদুল আজহায় কোন সিনেমাটি দেখছেন?
ঈদুল আজহায় কোন সিনেমাটি দেখছেন?
ঈদুল আজহায় কোন সিনেমাটি দেখছেন?

[wordpress_social_login]

Shares