Select Page

মারা গেছেন চলচ্চিত্রের পরিচিত মুখ আবদুল্লাহ সাকি

মারা গেছেন চলচ্চিত্রের পরিচিত মুখ আবদুল্লাহ সাকি

খুব একটা গুরুত্বপূর্ণ চরিত্র পেতেন না আবদুল্লাহ সাকি, তারপরও তার চেহারা ১৯৯০ দশক বা পরবর্তী দেড় দশকের অনেক নিয়মিত দর্শক মনে করতে পারবেন। সেই অভিনেতা মারা গেলেন গতকাল শনিবার দিবাগত রাত একটার দিকে। ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন। তার বয়স হয়েছিল ৬৬ বছর।

প্রায় দুই বছরের বেশি সময় ধরে অসুস্থ ছিলেন আবদুল্লাহ সাকি। এক মাস আগে দ্বিতীয়বারের মতো স্ট্রোক করে গুরুতর অসুস্থ হয়ে বিছানায় শয্যাশায়ী হন তিনি। এর পর থেকে তার শারীরিক অবস্থা খারাপ হতে থাকে। অবশেষে টানা এক মাস বাসায় শয্যাশায়ী থাকার পর শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। আবদুল্লাহ সাকিকে বেলা ১১টার দিকে গ্রামের বাড়ির পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়েছে।

আবদুল্লাহ সাকির জন্ম জামালপুরে ১৯৫৬ সালে। ১৯৯০ সালের দিকে শখে অভিনয় শুরু করেন। তিনি পরিচালক দেলোয়ার জাহান ঝন্টুর বেশির ভাগ সিনেমায় অভিনয় করেছেন।

আবদুল্লাহ সাকি সরকারি চাকরি করতেন। তিনি ২০০৭ সালে চাকরি থেকে স্বেচ্ছায় অবসরে যান। তার পর থেকে ঢাকাতেই থাকতেন। তখন বেশ কিছু সিনেমায় অভিনয় করেন। নাটকও প্রযোজনায় আসেন। পরবর্তী সময় তাঁর ইচ্ছা হয় গ্রামের বাড়ি চলে যাবেন। ২০১৬ সাল থেকে তিনি গ্রামের বাড়িতেই সময় কাটাচ্ছিলেন।

সাকি দীর্ঘ ক্যারিয়ারে ‘প্রেমগীত’, ‘মায়ের দোয়া’, ‘রাস্তার রাজা’, ‘ঝিনুক মালা’, ‘মাটির কোলে’, ‘গরিবের বন্ধু’, ‘হারানো প্রেম’সহ ৭০টির মতো সিনেমায় অভিনয় করেছেন। সর্বশেষ তাকে ২০১৬ সালে ‘ওয়ার্নিং’ সিনেমায় দেখা গেছে।


মন্তব্য করুন

Shares