Select Page

স্বপ্নজাল : যে গল্প প্রথম প্রেমের কথা মনে করিয়ে দেয়

স্বপ্নজাল : যে গল্প প্রথম প্রেমের কথা মনে করিয়ে দেয়

স্বপ্নজাল
ধরন : রোম্যান্টিক ড্রামা
পরিচালক : গিয়াসউদ্দিন সেলিম
কাস্ট : পরী মনি (শুভ্রা), ইয়াশ রোহান (অপু), ইরেশ যাকের (ঠাল্লু), মিশা সওদাগর (হীরণ সাহা/শুভ্রার বাবা), ফজলুর রহমান বাবু (আয়নাল গাজী), শহিদুল আলম সাচ্চু (অপুর বাবা), রেশমি সেন (শুভ্রার মাসী), বিপ্লব ব্যানার্জী (সুমল), শঙ্কর চক্রবর্তী (বিষ্ণুপদ বাবু), রজত গাঙ্গুলী (নাট্যদলের বাবু মশাই) প্রমূখ।

নামকরণ : প্রতিটি মানুষের মনেই কিছু আকাঙ্ক্ষা থাকে, কিছু স্বপ্ন থাকে; যেগুলো মনের মাঝেই একটি অপরটির সাথে জোড়া লেগে স্বপ্নের জাল বোনে। কিন্তু সব স্বপ্নের জাল সহজে বোনা যায় না; বাধা হয়ে দাঁড়ায় সমাজ, বাস্তবতা এবং কিছু মানুষের কুকর্ম। এসবই হলো ছবিটির বিষয়বস্তু। তাই নামকরণ হিসেবে “স্বপ্নজাল” অত্যন্ত সুন্দর একটি নাম।

কাচিস (কাহিনী +চিত্রনাট্য +সংলাপ) : অপু-শুভ্রার নিটোল টিনএজ প্রেম এবং শুভ্রার বাবার গুম হওয়ার রহস্য; এভাবে এছবির গল্পকে মোট ২টি অংশে ভাগ করা যায়। মৌলিক গল্পের ছবিটির চিত্রনাট্য খুব সুন্দরভাবে সাজানো হয়েছে। সর্বসাধারণের বোধগম্য হয় ঠিক ততটাই সহজভাবে উপস্থাপন করা হয়েছে। তবে ২ ঘণ্টা ২০ মিনিটের ছবিটির দৈর্ঘ্য আরেকটু কমানো যেতো; বিশেষ করে শেষের ২৫ মিনিটের স্ক্রিনপ্লে একটু মন্থরগতির ছিল। আর ছবির সংলাপ তো মুক্তির আগেই হিট! “আমার মনটাকে তোমার কাছে রেখে গেলাম। মনকে মোর বসতে দিয়ো; মুড়ি-মুড়কি খেতে দিয়ো; জলের গ্লাস দেওয়ার ছলে একটু শুধু ছুঁয়ে দিয়ো।” এমন অনেক সংলাপ রয়েছে ছবিতে ভালোলাগার মতো।
এ অংশ পাবে ১০০ তে ৮৫।

টিমওয়ার্ক : কয়েকদিন আগে প্রশ্নটি আমার মাথায় ঘুরপাক খাচ্ছিল, কেনই এ ছবিতে পরী মনির মতো বাণিজ্যিক ধারার কাউকে কাস্ট করা হল? কী বুঝে একটা নতুন ছেলেকে সম্ভাবনাময় একটা প্রজেক্টে লিড রোলে নেওয়া হল? বস্তুত ছবি দেখার পর আমি অপু চরিত্রে অভিনয়ের জন্য ইয়াশ রোহানের বিকল্প কাউকে খুঁজে পাচ্ছি না। এমন একটা হ্যাংলা-পাতলা ছেলেই দরকার ছিল চরিত্রটির জন্য।

আর পরী মনির কথা না বললেই নয়; গিয়াসউদ্দিন সেলিম তাকে একদম ঘষে-মেঝে সিম্পলি উপস্থাপন করেছেন। এ ছবিতে তার ন্যাচারাল বিউটি যে কোনো ছেলেকে ক্রাশ খাওয়ানোর জন্য যথেষ্ট। স্বপ্নজালে রয়েছে একটি শক্তিশালী সাপোর্টিং কাস্ট যেখানে মিশা সওদাগর, ফজলুর রহমান বাবু, ইরেশ যাকের শহিদুল আলম সাচ্চুদের অভিনয় ছবিকে পরিপূর্ণতা দান করেছে। ইরেশ যাকের বেশ পরিপক্ক অভিনয় করেছেন; তার দিকে নির্মাতাদের বিশেষ নজর দেওয়া জরুরি। আর ফজলুর রহমান বাবু হলেন আমাদের রত্ন। তার অভিনয়ের জবাব নেই। মিশা সওদাগরের পর্দায় উপস্থিতি কম হলেও তিনি গল্পের কেন্দ্রেই ছিলেন। তার ভিন্নধর্মী অভিনয়ও ভালো লেগেছে। এছাড়াও অন্যান্যদের মধ্যে শঙ্কর চক্রবর্তী বেশ ভাল অভিনয় করেছেন। বাকি যারা আছেন তারাও বেশ ভালো করেছেন।
এ অংশ পাবে ১০০ তে ৮০।

কারিগরি : যদি আমাকে বলা হয় স্বপ্নজালের কোন দিকটা অন্যান্য দিকের তুলনায় ভালো ছিলো। তাহলে আমি বলব, এর সিনেমাটোগ্রাফি। এই সেক্টরটায় ধীরে ধীরে আমাদের দেশী সিনেমাটোগ্রাফারেরা দিন দিন উন্নতি করছে। এই উন্নতি অব্যাহত থাকলে একসময় আমাদের বিদেশ নির্ভরতা কমে যাবে। অপু-শুভ্রার রোম্যান্টিক দৃশ্যগুলো অত্যন্ত যত্নসহকারে উপস্থাপন করা হয়েছে; যা দেখার পর যে কারো তার জীবনের প্রথম প্রেমের কথা মনে পড়ে যাবে। পুরো ছবিটির শুটিং করা হয়েছে চাঁদপুর এবং কলকাতায়; আর এক্ষেত্রে “এমন করে বলছি” গানের চাঁদপুরের লোকেশনটি এককথায় চোখ জুড়িয়ে যাওয়ার মতো। এডিটিং ও কালার গ্রেডিং মোটামুটি মানসম্মত; অতিরঞ্জিত কিছু করা হয়নি। ইয়াশ রোহানের লঞ্চ থেকে নদীতে লাফ দেওয়ার পুরো সিনটি পরিচালক খুব সুক্ষ্মভাবে ক্যামেরাবন্দি করেছেন। ব্যাকগ্রাউন্ড মিউজিক মোটামুটি ছিল; খুব আহামরি কিছু করা হয়নি।
এ অংশ পাবে ১০০ তে ৭৫।

বিনোদন : পুরো ছবিটি কিছুটা স্লো গতিতে এগোলেও মানানসই সিনেমাটোগ্রাফিতে তা বেশ ভালোই লাগছিল। তবে শেষ ৩০ মিনিটে এর গতিটা কিছুটা বৃদ্ধি করলে কিংবা শেষদিকের অংশগুলো একটু আগে-পরে এনে কিছু টুইস্ট সৃষ্টি করলে ভালো হতো। ছবিতে গান রয়েছে ৪টি; যার সবগুলোই শ্রুতিমধুর। আর গানগুলোর দৃশ্যায়নও বেশ ভালো ছিল।
এ অংশ পাবে ১০০ তে ৬০।

ব্যক্তিগত : গিয়াসউদ্দিন সেলিম দীর্ঘ ৯ বছর পর আবারো তার নতুন কোনো নির্মাণ নিয়ে আমাদের সামনে এলেন। তার প্রথম ছবি “মনপুরা” দেখেনি এমন মানুষ হয়তো এদেশে খুব কম আছে। ছবি দেখার পর একটা কথাই বলবো, স্বপ্নজালের সাথে মনপুরার থিমগত কিছু মিল রয়েছে। তবে নির্মাণ গত দিক থেকে “স্বপ্নজাল” “মনপুরা” র তুলনায় বেশি পরিণত।

রেটিং : ৪/৫

ছবিটি কেন দেখবেন : আপনি যদি সুস্থধারার ছবির ভক্ত হোন কিংবা যদি আপনার পরিচালকের “মনপুরা” দেখে ভালো না লেগে থাকে, তাহলে এ ছবিটি আপনার জন্য। এছাড়াও আপনার যদি পরী মনি/মিশা সওদাগর দের অ্যাকটিং দেখে নাক সিটকানোর অভ্যাস থাকে তাহলেও এ ছবিটি আপনার জন্য।


আমাদের সুপারিশ

মন্তব্য করুন

Shares