Select Page

প্যারিসে ১০ দিন কোয়ারেন্টাইন শেষে কানে যাবে টিম ‘রেহানা মরিয়ম নূর’

প্যারিসে ১০ দিন কোয়ারেন্টাইন শেষে কানে যাবে টিম ‘রেহানা মরিয়ম নূর’

বাংলা সিনেমাকে অন্যরকম উচ্চতায় নিয়ে নিরাপদে প্যারিস পৌঁছেছে টিম ‘রেহানা মরিয়ম নূর’ দল। সাতজনের টিমের ছয়জনকে পাওয়া গেল একটি ছবিতে, যথারীতি অনুপস্থিত পরিচালক আব্দুল্লাহ মোহাম্মদ সাদ। ক্যামেরার পেছনে থাকতে ভালোবাসেন তিনি, এবারও আড়াল হিসেবে বেছে নিলেন ক্যামেরাকে।

ছবিতে আজমেরী হক বাঁধন ছাড়াও আছেন শব্দ প্রকৌশলী শৈব তালুকদার, কালারিস্ট চিন্ময় রয়, প্রোডাকশন ডিজাইনার আলী আফজাল উজ্জ্বল, চিত্রগ্রাহক তুহিন নাজমুল ও নির্বাহী প্রযোজক এহসানুল হক বাবু।

কানে যাওয়ার জন্য ‘রেহানা মরিয়ম নূর’ সিনেমার আটজন পেয়েছেন ফ্রান্সের ভিসা। সহ-প্রযোজক রাজীব মহাজন শিগগিরই শুক্রবার রাতে প্যারিসে পা রাখা সাতজনের সঙ্গে যোগ দেবেন।

জানা যায়, আগে থেকেই প্যারিস ভিসার শর্ত ছিল ১০ দিনের কোয়ারেন্টিন। সে হিসেবে প্যারিসে নেমেই তারা শহর থেকে বেশ খানিকটা দূরে একটি বাগান বাড়ি ভাড়া করেছেন।

কোয়ারেন্টিন শেষ হবে ৪ জুলাই। এরপর ‘রেহানা মরিয়ম নূর’ দল যাবে ৯০০ কিলোমিটারের বেশি দূরত্বের নিসে। এই সমুদ্রশহর থেকে কান ৩০ কিলোমিটারের মতো। এখানে বসবে কান চলচ্চিত্র উৎসবের আসর।

‘রেহানা মরিয়ম নূর’ কানে দেখানোর কথা ৭ ও ৮ জুলাই, তবে এখনো আনুষ্ঠানিকভাবে সেটি জানায়নি উৎসব কর্তৃপক্ষ। মজার বিষয় হলো, সেখানেই প্রথমবারের মতো পুরো ছবিটি দেখার সুযোগ পাবেন নায়িকা বাঁধন।

কানের ‘আঁ সার্তে রিগা’ বিভাগে মনোনয়ন পেয়েছে ১৫ দেশের ১৮টি সিনেমা। প্রতিভাবান ও প্রতিশ্রুতিশীল তরুণ পরিচালকদের সঙ্গে বিশ্বকে পরিচয় করিয়ে দিতে ১৯৭৮ সালে বিভাগটি চালু করেন জিল জ্যাকব। এই বিভাগে বিজয়ী সেরা ছবিকে দেওয়া হয় ৩০ হাজার ইউরো। ৬ জুলাই থেকে ফ্রান্সের কানে বসবে উৎসবের ৭৪তম আসর। উৎসবের সমাপনী দিন ১৭ জুলাই পর্যন্ত। ১৮ জুলাই সবার দেশে ফেরার কথা রয়েছে।


মন্তব্য করুন

Shares