Select Page

‘মাটির পাহাড়’ ছবির নায়ক কাফি খান আর নেই

‘মাটির পাহাড়’ ছবির নায়ক কাফি খান আর নেই

অভিনেতা ও বেতার ব্যক্তিত্ব কাফি খান আর নেই। ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৯৩ বছর।

যুক্তরাষ্ট্রের ভার্জিনিয়ার আর্লিংটনে ভার্জিনিয়া সেন্টার হাসপাতালে বৃহস্পতিবার বিকালে কাফি খান শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন বলে সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন তার ছেলে রাফি খান।

তিনি দীর্ঘদিন প্রোস্টেট ক্যান্সারে ভুগছিলেন।

যুক্তরাষ্ট্র সময় শুক্রবার জুমার নামাজের পর সুগারল্যান্ড রোডের অ্যাডামস সেন্টার মসজিদে তার জানাজা হবে। এরপর মুসলিম গোরস্থানে দাফন করা হবে।

১৯২৮ সালের ১ মে ব্রিটিশ ইন্ডিয়ার পশ্চিমবঙ্গের চব্বিশ পরগনা জেলার বারাসাত মহকুমার কাজীপাড়া গ্রামে কাফি খানের জন্ম। স্কুল-কলেজে পড়াশোনাকালে তিনি আবৃত্তি চর্চার সঙ্গে জড়িত হন। দেশবিভাগের পরপরই ঢাকায় চলে আসেন, সরকারি চাকরির পাশাপাশি যুক্ত হন নাট্যচর্চায়। এরপর নিয়মিত হন বেতার ও টিভি নাটকে।

ওই সময়কার বেতারের প্রযোজক মহিউদ্দিন পরিচালিত ‘মাটির পাহাড়’ ছবিতে সুলতানা জামান ও ড. রওশন আরার বিপরীতে নায়কের ভূমিকায় অভিনয় করেন কাফি খান। চলচ্চিত্রটি ১৯৫৯ সালের ২৮ আগস্ট পূর্ব পাকিস্তানে মুক্তি পায়।

এরপর করেন তোমার আমার, অনেক দিনের চেনা, রাজা সন্ন্যাসী, দুই দিগন্ত প্রভৃতি ছবি।

১৯৬৬ সালে ওয়াশিংটনে ভয়েস অব আমেরিকাতে সংবাদ পাঠক হিসেবে যোগ দেন কাফি। ১৯৭৩ সালে দেশে ফিরে তিনি বাংলাদেশ টেলিভিশনে সংবাদ পাঠ শুরু করেন। ১৯৭৫ সালে বাংলাদেশ জাতীয় টেলিভিশন পুরস্কার অর্জন করেন। ১৯৮২ সালে আবারও ভয়েস অব আমেরিকায় যোগ দেন। ১৯৯৪ সালে তিনি অবসর নেন। অবশ্য ১৯৯৯ সাল থেকে বেশ কিছুদিন খন্ডকালীন বেতার সম্প্রচারক হিসেবে ভয়েস অব আমেরিকায় যুক্ত ছিলেন।

১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধের সময়ে ওয়াশিংটনে মুক্তিযুদ্ধের পক্ষে বলিষ্ঠ ভূমিকা পালন করেন কাফি খান।

সত্তরের দশকের শেষ থেকে আশির দশকের প্রথম দিক পর্যন্ত তিনি প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমানের প্রেস সচিব হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।


অামাদের সুপারিশ

মন্তব্য করুন

ই-বুক ডাউনলোড করুন

BMDb ebook 2017

Shares