Select Page

রাজ্জাকের ছবি ঝুলবে শিল্পী সমিতিতে

রাজ্জাকের ছবি ঝুলবে শিল্পী সমিতিতে

নায়করাজ রাজ্জাক বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি। এবার এই কিংবদন্তি অভিনেতাকে শ্রদ্ধা জানিয়ে শিল্পী সমিতির রুমে তার ছবি ঝুলানো হবে। এরইমধ্যে সমিতিতে এ নিয়ে কয়েক দফা সভা হয়েছে বলে মানবজমিনকে জানিয়েছেন শিল্পী সমিতির বর্তমান সাধারণ সম্পাদক ও অভিনেতা অমিত হাসান।

তিনি বলেন, অনেকদিন ধরেই এটা আমরা পরিকল্পনা করছি। ফেব্রুয়ারির প্রথম সপ্তাহে রাজ্জাক ভাইয়ের কাছ থেকে তারিখ নিয়ে আমরা এ আয়োজনটা আমাদের সমিতিতে করতে চাই। নায়করাজ শুধু একজন জনপ্রিয় অভিনেতাই নন, তিনি আমাদের শিক্ষকও। তার ছবি শ্রদ্ধার সঙ্গে এই সমিতিতে ঝুলানোর পাশাপাশি একটা চা চক্রেরও আয়োজন থাকবে। এটা এরইমধ্যে চূড়ান্ত করেছি আমরা।

সমিতির সহসভাপতি ওমর সানী বলেন, তিনি আমাদের মহানায়ক। চলচ্চিত্র শিল্পীদের সংগঠন প্রতিষ্ঠা করেছেন তিনি। তাকে নিয়ে বিশেষ আয়োজনের এই দিনটা ভালোভাবে পালন করতে চাই।

২৩ জানুয়ারি ৭৬ বছর বয়সে পা রাখেন দেশীয় চলচ্চিত্রের জীবন্ত কিংবদন্তি নায়করাজ রাজ্জাক। চলচ্চিত্র শিল্পীদের সংগঠন বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি এই অভিনেতা। অভিনয়ের পাশাপাশি রাজ্জাক প্রযোজক, পরিচালক হিসেবেও কাজ করেন। গড়ে তোলেন প্রযোজনা সংস্থা রাজলক্ষ্মী প্রোডাকশন। নির্মাণ করেন ‘আকাঙ্ক্ষা’, ‘পাগলারাজা’, ‘জোকার’, ‘অনন্ত প্রেম’, ‘অভিযান’, ‘বদনাম’, ‘প্রফেসর’, ‘উত্তর ফাল্গুনী’, ‘প্রেমশক্তি’, ‘ঢাকা ৮৬’, ‘জিনের বাদশা’, ‘চাপাডাঙ্গার বউ’, ‘বাবা কেন চাকর’, ‘সৎ ভাই’, ‘সন্তান যখন শত্রু’, ‘প্রেমের নাম বেদনা’, ‘আমি বাঁচতে চাই’, ‘কোটি টাকার ফকির’, ‘মন দিয়েছি তোমাকে’সহ অসংখ্য ছবি।

১৯৭৭ সালে রাজ্জাক আত্মপ্রকাশ করেন পরিচালক হিসেবে। নির্মাণ করেন ‘অনন্ত প্রেম’। তার পরিচালিত অন্যান্য ছবির মধ্যে ‘চাপাডাঙ্গার বউ’, ‘বদনাম’, ‘বাবা কেন চাকর’ উল্লেখযোগ্য।

তিনি চলচ্চিত্র প্রযোজক পরিবেশক সমিতির কার্যনির্বাহী পরিষদের সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। এছাড়া বাংলাদেশ চলচ্চিত্র সেন্সর বোর্ডের সদস্য হিসেবেও দায়িত্ব পালন করেছেন নায়করাজ রাজ্জাক।


মন্তব্য করুন

Shares