Select Page

শুধু নিজের প্রযোজনায় যৌথ সিনেমার সিদ্ধান্ত

শুধু নিজের প্রযোজনায় যৌথ সিনেমার সিদ্ধান্ত

# কিছুদিন আগেও যৌথ প্রযোজনার অনিয়ম নিয়ে কথা বললে ষড়যন্ত্র দেখতেন তিনি
# নিজের প্রতিষ্ঠান সংস্থা ছাড়া আর কারও যৌথ ছবিতে কাজ করবেন না
# এর পেছনে কিছু অভিযোগের কথা বলছেন শাকিব খান
# যৌথ প্রযোজনায় দেশীয় প্রতিষ্ঠানগুলো কোনো নিয়ম-নীতি মানছে না। তাই ছবি মুক্তিতে সমস্যা হয়
# দুই দেশের শিল্পী হবে সমানুপাতিক

কিছুদিন আগেও যৌথ প্রযোজনার অনিয়ম নিয়ে সমালোচনা করলে ষড়যন্ত্রের গন্ধ পেতেন শাকিব খান। এবার যৌথ ছবিতে অভিনয় নিয়ে ঢালিউডের শীর্ষনায়ক নতুন পরিকল্পনার কথা জানালেন। এখন থেকে যৌথ আয়োজনের ছবিতে অভিনয় করলে সেই ছবিটি হবে তার প্রযোজনা সংস্থার। নিজের প্রযোজনা সংস্থা ছাড়া আর কারও যৌথ ছবিতে কাজ করবেন না তিনি।

এর পেছনে একগাদা অভিযোগ আছে শাকিবের। তিনি বলেন, স্থানীয় প্রযোজনা সংস্থাগুলো যৌথ আয়োজনের ছবি নির্মাণ করতে গিয়ে নানা অনিয়ম করে আসছে। নিয়ম-নীতির ধার ধারে না। এতে আমার অভিনয় করা সেই ছবিগুলো মুক্তি পেতে বাধার মুখে পড়ে। ফলে আমার ক্যারিয়ারের ক্ষতি হয়।

তাছাড়া স্থানীয় প্রযোজনা সংস্থাগুলো যৌথ প্রযোজনার ছবিগুলোতে অনিয়ম করায় সে ছবিকে কলকাতার ছবি হিসেবে আমদানি করতে গিয়েও প্রতিবন্ধকতার মুখে পড়ে। এ কারণে ছবিটি একসঙ্গে দুই দেশে মুক্তি দিতে না পারায় আগে কলকাতায় মুক্তি পেয়ে যায় বলে সেই ছবির ম্যারিট নষ্ট হয়ে যায়। নানাভাবে দর্শক ছবিটি দেখে ফেলে। পরে এখানে ছবিটি মুক্তি পেয়ে আর কাঙ্ক্ষিত ব্যবসা করতে পারে না। সম্প্রতি মুক্তি পাওয়া ‘নাকাব’ ছবিটি এর প্রকৃষ্ট উদাহরণ।

যৌথ আয়োজনের ছবি নির্মাণে অন্য অনিয়মের মধ্যে উল্লেখযোগ্য হলো-ওয়ার্ক পারমিট ছাড়াই বিদেশি নির্মাতা-শিল্পী কলাকুশলীদের এখানে এনে অভিনয় করানো,  এখানকার অভিনয় শিল্পী নির্মাতাদের  আনুপাতিকহারে কাস্ট না করা আরেকটি গুরুতর অভিযোগ। এসব কারণে যৌথ প্রযোজনার ছবি নিয়ে বিতর্ক তৈরি হয়েছে। আর এ জন্যই সিদ্ধান্ত নিয়েছি এখন থেকে আমার নিজস্ব প্রোডাকশন হাউস এস কে ফিল্মসের সঙ্গে নির্মিত যৌথ আয়োজনের ছবিতেই শুধু অভিনয় করব।

তাছাড়া স্থানীয় ছবিতে কাজ করতে গেলেও প্রযোজনা সংস্থা বেছে কাজ করব। আর নিজের প্রযোজনা সংস্থার মাধ্যমে নিয়মিত ছবি নির্মাণ করে দেশীয় চলচ্চিত্রশিল্পকে ছবির খরা থেকে উদ্ধার করতে চাই- বললেন শাকিব।

এ নায়কের এস কে ফিল্মসের ব্যানারে ২০১৪ সালে মুক্তি পায় ‘হিরো দ্য সুপারস্টার’। সিনেমাটি দর্শকরা গ্রহণ করলেও শাকিব আর প্রযোজনায় দেখা যায়নি। মাঝে নতুন সিনেমার ঘোষণা দিলেও আলোর মুখ দেখেনি। এদিকে তাকে নিয়ে চারটি ছবি তৈরি করলেও পারিশ্রমিক বিরোধ ও অন্য জটিলতায় সম্প্রতি মুখ ফিরিয়ে নিয়েছে কলকাতার এস কে মুভিজ। এছাড়া শ্রী ভেঙ্কটেশ ফিল্মসের ব্যানারে নির্মিত ‘নাকাব’ সাফল্যের মুখ দেখেনি। অবশ্য শিকারি ও নবাব ছাড়া বাকি তিন সিনেমা কলকাতার ছবি হিসেবে নির্মিত। যৌথ ছবি দুটির বিরুদ্ধেও অনিয়মের অভিযোগ আছে। তবে নতুন করে কোনো প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে যৌথ প্রযোজনায় যাচ্ছেন জানাননি এ নায়ক।

শাকিব খানের মন্তব্য সূত্র : বাংলাদেশ প্রতিদিন

 

 


অামাদের সুপারিশ

মন্তব্য করুন

ই-বুক ডাউনলোড করুন

BMDb ebook 2017

Coming Soon
বঙ্গবন্ধুর বায়োপিকের অভিনয়শিল্পী বাছাই কেমন হয়েছে?
বঙ্গবন্ধুর বায়োপিকের অভিনয়শিল্পী বাছাই কেমন হয়েছে?
বঙ্গবন্ধুর বায়োপিকের অভিনয়শিল্পী বাছাই কেমন হয়েছে?

[wordpress_social_login]

Shares