Select Page

কমলা রকেট : নতুন গল্পের ইঙ্গিত

কমলা রকেট :  নতুন গল্পের ইঙ্গিত


ঈদুল ফিতরের সিনেমার তালিকায় সবশেষে যোগ দিয়েছে নূর ইমরান মিঠুর ‘কমলা রকেট’। ১৫টির মতো প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পেতে পারে সিনেমাটি। তা সত্ত্বেও দারুণ আগ্রহ জাগিয়েছে যারা অন্যরকম কিছু সিনেপর্দায় দেখতে চান তাদের মনে।

সিনেমাটি প্রযোজনা করছে ইমপ্রেস টেলিফিল্ম। প্রধান দুটি চরিত্রে আছেন তৌকীর আহমেদ ও মোশাররফ করিম। আসুন ‘কমলা রকেট’-এর আকর্ষণীয় কিছু দিক জানা যাক—

লঞ্চে ধারণ করা হয়েছে পুরো সিনেমা। তাও আবার ব্রিটিশ আমলের লঞ্চ। এর চেয়ে আকর্ষণীয় লোকেশন আর কি হতে পারে। সাধারণত একটি লোকেশনে পুরো সিনেমা দৃশ্যায়িত হলে টানটান কিছু রাখার চেষ্টা করেন নির্মাতা। এই সিনেমায় কি তেমন কিছু হবে?


গল্প এর অন্যতম আকর্ষণ। বাংলা একাডেমি সাহিত্য পুরস্কারজয়ী শাহাদুজ্জামানের দুটি গল্প ‘মৌলিক’ ও ‘সাইপ্রাস’ অবলম্বনে নির্মিত হয়েছে ‘কমলা রকেট’। যারা শাহাদুজ্জামানের গল্প পড়েছেন তারা জানেন, কী চমৎকার সাজিয়ে-গুছিয়ে ও বিষয়ে গভীরের গিয়ে টানটান গদ্যে কথা বলেন। আনন্দের বিষয় হলো, ‘কমলা রকেট’-এর চিত্রনাট্য তিনিই করেছেন নির্মাতা মিঠুর সঙ্গে মিলে। বোঝায় যাচ্ছে, শাহাদুজ্জামানের গল্পের গভীরতা অক্ষুণ্ন থাকবে সিনেমায়ও।

অভিনেতা নির্বাচনে বুদ্ধিমত্তার পরিচয় দিয়েছেন মিঠু। ইন্সুরেন্সের টাকার জন্য কারখানায় আগুন লাগিয়ে দেওয়া মালিকের চরিত্রে আছেন তৌকীর আহমেদ, দালালের চরিত্রে মোশাররফ করিম। ট্রেলার বলে দিচ্ছে তাদের চরিত্রে একাধিক স্তর থাকছে। এছাড়া অন্যান্য চরিত্রগুলোও আশা জাগানিয়া। ট্রেলারে দেখা ছোট ছোট দৃশ্যগুলো সেই কথাই বলছে।

ইতোমধ্যে সিনেমাটির দুটি গান মুক্তি পেয়েছে। এর মধ্যে শ্রোতাদের ছুঁয়ে গেছে বাংলা ভাবগানের ভাণ্ডার থেকে নেওয়া ‘মন মাঝে’। মহর্ষি মনমোহন দত্তের কথায় সুর করেছিলেন ওস্তাদ আফতাব উদ্দিন খাঁ। কণ্ঠ দিয়েছেন সুনীল কর্মকার। এ ধরনের আরো চমক থাকছে সিনেমাটিতে।

শাহাদুজ্জামান, মোস্তফা সরয়ার ফারুকীসহ অনেকেই ‘কমলা রকেট’ নিয়ে আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন। এছাড়া নির্মাতা মিঠুর একাধিক সাক্ষাৎকারে পাওয়া গেছে, বুদ্ধিদীপ্ত একজন পরিচালকের পরিচয়।

সব মিলিয়ে, ঈদের বাজারে গতানুগতিক সিনেমার ভিড়ে আশার নাম ‘কমলা রকেট’। এখন দেখার পালা প্রত্যাশা কতটা পূরণ হয়।


অামাদের সুপারিশ

মন্তব্য করুন

ই-বুক ডাউনলোড করুন

স্পটলাইট

Movies to watch in 2018
Coming Soon

Shares